হুমকি দেয়ায় ইরানি রাষ্ট্রদূতকে তলব আমিরাতের

ইসরাইলের সঙ্গে কৌশলগত চুক্তি করায় আমিরাতকে ক্ষেপণাস্ত্র হামলার হুমকি দিয়েছে ইরান। এ ঘটনায় আমিরাতে নিযুক্ত ইরানি রাষ্ট্রদূতের দায়িত্বে থাকা কর্মকর্তাকে কড়া প্রতিবাদ জানাতে তলব করেছে আবুধাবি এ  জানিয়েছেন।

রোববার আমিরাতের পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয় রুহানির বক্তব্যকে অগ্রহণযোগ্য ও উসকানিমূলক বলে আখ্যায়িত করেছে।

আমিরাত-ইসরাইল চুক্তির পর ইরানের প্রেসিডেন্ট হাসান রুহানি বলেছেন, দেশটির প্রেসিডেন্ট হাসান রুহানি বলেছেন, ইসরাইলের সঙ্গে সম্পর্ক স্বাভাবিকীকরণে চুক্তির মাধ্যমে সংযুক্ত আরব আমিরাত বিশাল ভুল করেছে।

গত বৃহস্পতিবার মার্কিন প্রেসিডেন্ট ট্রাম্পের মধ্যাস্থতায় ইসরাইল-আমিরাতের মধ্যে চুক্তি অনুষ্ঠিত হয়।

শনিবার টেলিভিশনে দেয়া বক্তৃতায় এ অঞ্চলে শক্ত অবস্থান নিয়ে ইসরাইলকে চেপে বসতে সুযোগ দেয়ার বিরুদ্ধে সংযুক্ত আরব আমিরাতকে সতর্ক করেন রুহানি।

তিনি বলেন, তাদের (আমিরাত) সতর্ক হওয়া ভালো। ইতিমধ্যে তারা বিশাল ভুল করেছে। বিশ্বাসঘাতকতাপূর্ণ কাজ করেছে। আমার প্রত্যাশা, তারা বুঝতে পারবেন এবং ভুল পথ পরিত্যাগ করবেন।

রুহানি বলেন, নভেম্বরের মার্কিন প্রেসিডেন্ট নির্বাচনে ট্রাম্পের আরেক দফা বিজয় নিশ্চিত করতে এই চুক্তি করা হয়েছে। যে কারণে ওয়াশিংটন থেকে এই চুক্তির কথা ঘোষণা করা হয়।

এখন কেন ঘোষণাটি এসেছে প্রশ্ন রেখে ইরানি প্রেসিডেন্ট বলেন, যদি এটি কোনো ভুল চুক্তি না হতো, তাহলে তৃতীয় আরেকটি দেশে বসে কেন ঘোষণাটি দেয়া হয়েছে? আমেরিকায় একজন যাতে নির্বাচনে জয়ী হতে পারেন, তা নিশ্চিত করতে আমিরাত তাদের দেশের লোকজন, মুসলমান ও আরব বিশ্বের সঙ্গে বিশ্বাসঘাতকতা করেছে।

সূত্র:আরব নিউজ।