‘হার্ট স্টার্টার’ বসানো হবে এরিকসেনের বুকে

ভাগ্যক্রমে মৃত্যুর মুখ থেকে বেঁচে ফিরেছেন ডেনমার্কের তারকা মিডফিল্ডার ক্রিস্টিয়ান এরিকসেন। ইউরো চ্যাম্পিয়নশিপের দ্বিতীয় দিন ফিনল্যান্ডের বিপক্ষে খেলা চলাকালীন হঠাৎ অচেতন হয়ে পড়েছিলেন তিনি।

ধীরে ধীরে সুস্থ হয়ে উঠছেন এরিকসেন। যদিও এখনো হাসপাতালে চিকিৎসাধীন এই ডেনিশ ফুটবলার। তবে আর কখনো যাতে হৃদরোগের সমস্যায় পড়তে না হয়, তার জন্য হার্ট স্টার্টার (আইসিডি) ডিভাইস বসবে এরিকসেনের বুকে।

বৃহস্পতিবার (১৭ জুন) ডেনমার্ক জাতীয় দলের চিকিৎসক মোর্টেন বোয়েসেন এক বিবৃতিতে এ তথ্য জানিয়েছেন। শরীরে হৃদযন্ত্র স্বাভাবিকভাবে সচল রাখার জন্য এই যন্ত্র বসানো হবে বলে জানান তিনি।

এরিকসেনকে নিয়ে কোনো ঝুঁকি নিতে নারাজ ডেনমার্কের ফুটবল ফেডারেশন। তাই যাবতীয় শারীরিক পরীক্ষা করিয়ে নিশ্চিত হতে চাইছেন তারা। দ্রুত আইসিডি বসানোর কাজও সেরে ফেলা হবে বলে জানানো হয়েছে।

ডা. বোয়েসন বলেন, ‘হঠাত্‍ হৃদরোগে আক্রান্ত হলে এইরকম যন্ত্রের দরকার পড়ে। যাতে হৃদযন্ত্রের ছন্দ ব্যহত না হয়। এই সিদ্ধান্তে সম্মতি জানিয়েছেন এরিকসেন। এই চিকিৎসক আরও বলেন, ‘হঠাত্‍ করে হৃদরোগে আক্রান্ত হলে আইসিডি বসানোর পরামর্শ দেওয়া হয়। এরিকসেনের ক্ষেত্রেও তাই কোনো রকম ঝুঁকি না নিয়ে এই পথই বেছে নেওয়া হয়েছে। এই সময় এরিকসেন ও তার পরিবারের পাশে সবাই থাকুন, এই প্রত্যাশ্যাই করব।

গত শনিবার (১২ জুন) ফিনল্যান্ডের বিপক্ষে ইউরো কাপের প্রথম ম্যাচে হঠাত্‍ই মাঠে হৃদরোগে আক্রান্ত হন এরিকসেন। প্রাথমিক চিকিত্‍সায় সাড়া দেওয়ার পর তাকে হাসপাতালে নেওয়া হয়। আপাতত সেখানেই ডাক্তারদের পর্যবেক্ষণে রয়েছেন তিনি। বেশ কিছু ডাক্তারি পরীক্ষার পর হার্ট স্টার্টার বসানোর সিদ্ধান্তে পৌঁছেছেন চিকিত্‍সকরা।