সচিব সেজে থানায় গিয়ে প্রভাব খাটানোর চেষ্টা, আটক তেল ব্যবসায়ী!

সচিব সেজে পুলিশ সুপারের কার্যালয়ে গিয়ে গ্রেফতার হলেন এক তেল ব্যবসায়ী। এমন ঘটনা ঘটেছে বরগুনায়। শনিবার (২৯ আগস্ট) রাতে সংবাদ সম্মেলনে পুলিশ জানায়, গ্রেফতার হওয়া দুলাল ও তার চক্র এ ধরনের প্রতারণার আশ্রয় নিয়েছেন আগেও। সবকিছু তদন্ত করে আইনি ব্যবস্থা নেয়ার কথাও জানান তারা।

উপ-সচিব, বিদ্যুৎ, জ্বালানি ও খনিজ সম্পদ মন্ত্রণালয়। এই পরিচয়ে শনিবার বিকেল চারটার দিকে বরগুনার পুলিশ সুপারের সাথে দেখা করেন দুলাল। পাথরঘাটা উপজেলার জমি সংক্রান্ত এক মামলায় প্রভাব খাটানোর চেষ্টা করেন তিনি। পুলিশ সুপারের সন্দেহ হওয়ায় যাচাই-বাছাই করে তাৎক্ষণিক ডিবি পুলিশকে দিয়ে তাকে গ্রেফতার করান তিনি।

অতিরিক্ত পুলিশ সুপার মহরম আলী বলেন, পুলিশ সুপার বিভিন্ন জায়গায় তার নাম দিয়ে বিষয়টি যাচাই করতে বলেন, তাকে জিজ্ঞাসাবাদে জানা যায় সে যে পরিচয় দিয়েছে তা ভুয়া।

নিজেকে কখনো সচিব কখনো উপ-সচিব দাবি করে এর আগেও বিভিন্ন থানায় গিয়ে প্রতারণা করেছে দুলাল।

 

মহরম আলী বলেন, সচিবের পরিচয়ে নানা রকম সুবিধা গ্রহণ করতো।

তার চক্রকে ধরতে তদন্ত শুরু করার দাবি পুলিশের।

মহরম আলী আরো বলেন, তার সাথে যে মোবাইল ডিভাইস, এছাড়া একটি ডায়রি ছিল। সেগুলো আমরা জব্দ করেছি।

মো. সাইফুল্লাহ মাহমুদ দুলালের বাড়ি বরগুনার পাথরঘাটা উপজেলার জ্ঞানপাড়া গ্রামে। সে ঢাকা সদরঘাট এলাকায় তেল বিক্রি করতো।