ল্যান্ডমাইন বিস্ফোরণে আফগানিস্তানে শিশুসহ নিহত ১১

রাস্তার পাশে পুঁতে রাখা ল্যান্ডমাইন বিস্ফোরণে আফগানিস্তানের উত্তরে ১১ জন নিহত হয়েছেন। এদের মধ্যে ৩ শিশুও রয়েছে।
রোববার এ তথ্য জানায় কাতারভিত্তিক সংবাদমাধ্যম আলজাজিরা। রোববার স্থানীয় সরকারের কর্মকর্তারা এ হামলার জন্য তালেবানকে দায়ী করেছেন।

দেশটির বাদগিস প্রদেশের গভর্নর হুসামুদ্দিন শামস বলেন, শনিবার এ ল্যান্ডমাইন বিস্ফোরণের ঘটনা ঘটে। নিহতদের মধ্যে ৩ শিশুও রয়েছে। নিহতরা কালা ই নাউ শহরে যাওয়ার পথে এ দুর্ঘটনার শিকার হয়। এখন পর্যন্ত কেউই এ ঘটনার দায় স্বীকার করেনি।

আফগানিস্তানের শান্তি প্রক্রিয়া, কূটনীতিক ও স্বেচ্ছাসেবী সংস্থার কর্মীদের নিরাপত্তার বিষয়ে কাতারে শনিবার জাতিসংঘের কর্মকর্তা এবং তালেবান নেতাদের মধ্যে বৈঠকের কয়েক ঘণ্টা আগে এ ঘটনা ঘটলো।

বৈঠকে তালেবানের রাজনৈতিক দপ্তরের উপপ্রধান শের মোহাম্মদ আব্বাস স্টানেকজাই ‘পুনরায় আফগানিস্তানের শান্তি প্রক্রিয়ার প্রতি জোরালো প্রতিশ্রুতি’ দিয়েছেন। একইসঙ্গে জাতিসংঘের সঙ্গে সম্পর্কিত সংস্থার কর্মী ও কূটনীতিকদের নিরাপত্তার বিষয়েও আশ্বাস দিয়েছে তালেবানের প্রতিনিধি দল।

সাম্প্রতিক সময়ে আফগানিস্তানে নিরাপত্তা বাহিনীর সদস্য, বিচারক, সরকারি কর্মকর্তা, সুশীল সমাজের প্রতিনিধি এবং সাংবাদিকদের ওপর যে হামলা হচ্ছে তার বেশিরভাগের পেছনে তালেবানের হাত রয়েছে বলে অভিযোগ করেছেন বিশেষজ্ঞরা।

২০২১ সালের প্রথম তিন মাসে তালেবান এবং সরকারি বাহিনীর মধ্যে হওয়া সংঘর্ষে প্রায় ১৮০০ জনের মৃত্যু হয়েছে।আফগানিস্তানে ২০০১ সালে যুক্তরাষ্ট্র আগ্রাসন শুরু করে। দীর্ঘদিন পর আফগানিস্তান থেকে সেনা প্রত্যাহার করতে যাচ্ছে যুক্তরাষ্ট্র। এ ঘোষণা আসার পর থেকেই বেড়েছে হামলা।