লকডাউনের বিরুদ্ধে জার্মানিতে হাজারো মানুষের বিক্ষোভ

মহামারি করোনার বিস্তার ঠেকাতে লকডাউন সংক্রান্ত বিধি-নিষেধের বিরুদ্ধে জার্মানির বার্লিনে কয়েক হাজার মানুষ বিক্ষোভ করেছেন। বিক্ষোভকারীরা বলছেন, এ সকল বিধি-নিষেধ মানুষের অধিকার ও স্বাধীনতার পরিপন্থী।

শনিবার সেন্ট্রাল বার্লিনের ভ্যাকসিনবিরোধী ও কনসপিরেসি থিওরিস্ট ছাড়াও নানা গোষ্ঠীভক্ত হাজারো মানুষ এমন বিক্ষোভ করেন। এছাড়া বিক্ষোভে জার্মানির কালো, সাদা ও লাল রঙের উপনিবেশবাদী পতাকা নিয়েও তাতে অংশ নেন কট্টর ডানপন্থী দলের মানুষজনও।

আয়োজকরা প্রাথমিকভাবে আশা করেছিল পাঁচ লাখ বিক্ষোভকারী তাতে অংশ নেবেন। কিন্তু পুলিশের ধারণা বিক্ষোভ প্রায় ১৭ হাজার মানুষ অংশ নেন।

আয়োজকরা স্বাস্থ্য-সুরক্ষা মেনে না চলায় পুলিশ বিক্ষোভ ছত্রভঙ্গ করে দেয়। স্বাস্থ্যবিধির তোয়াক্কা না করে এমন বিক্ষোভের ডাক দেওয়ায় আয়োজকদের বিরুদ্ধে আইনি ব্যবস্থা নেওয়া হবে বলে জানিয়েছে পুলিশ। জার্মান কর্মকর্তারা দ্বিতীয় দফায় করোনার সংক্রমণ শুরু হওয়ার বিষয়ে সতর্কতা দেওয়ার এমন বিক্ষোভ দেখা গেলো।

জার্মানিতে এখন পর্যন্ত ২ লাখ ১০ হাজার মানুষ করোনাভাইরাস সংক্রমিত কোভিড-১৯ রোগে আক্রান্ত হিসেবে শনাক্ত হয়েছেন। আক্রান্তদের মধ্যে প্রাণ হারিয়েছেন ৯ হাজার ১৫৪ জন। দেশটিতে করোনায় মৃত্যুহার অনেক কম। তবে দ্বিতীয় দফার সংক্রমণ নিয়ে দেশটি চরম উদ্বিগ্ন হয়ে পড়েছে।

সংক্রমণ ঠেকাতে সরকার স্বাস্থ্যবিধিসহ নানারকম বিধি-নিষেধ আরোপ করে রেখেছে। কিন্ত শনিবার যারা বিক্ষোভ করছেন তারা বলছেন, এসব বিধি-নিষেধ আমাদের স্বাধীনতা হরণ করছেন। তারা স্বাধীনতা, স্বাধীনতা বলে চিৎকার করছেন। আর লকডাউনবিরোধীরা আমরা এখন দ্বিতীয় দফা সংক্রমণের মুখে বলে স্লোগান দেন।