মালদ্বীপকে ঋণ পরিশোধ করতে বলল চীন!

মালদ্বীপের প্রেসিডেন্ট ইব্রাহিম মোহাম্মদ সলিহ যখন করোনা ভাইরাসের মহামারির সঙ্গে লড়াই করছেন ঠিক তখনই দেশটিকে ঋণ পরিশোধের জন্য চাপ দিয়েছে চীন।

এক রিসোর্ট ব্যবসায়ীকে বলা হয়েছে, ঋণের একটি কিস্তি হলেও পরিশোধ করতে হবে ইব্রাহিম সলিহর দেশকে।

বলা হয়েছে, ওই কিস্তির পরিমাণ ১০ মিলিয়ন মার্কিন ডলার যা প্রায় ১৫৪ মিলিয়ন ‎মালদ্বীপীয় রুফিয়ার সমান। যেখানে মোট লোনের পরিমাণ ছিল ১২৭ মিলিয়ন মার্কিন ডলার।

ঋণ নেওয়া সাবেক সংসদ ইয়ামন আলী ও আহমেদ সিয়ামকে এ লোন পরিশোধের জন্য বলা হয়েছে। কিন্তু তারা পরিশোধে ব্যর্থ হলে মালদ্বীপ সরকারকে এ লোন পরিশোধ করতে হবে।

বলা হয়েছে, যদি মালদ্বীপ সরকার এই ঋণ পরিশোধ করতে না চায় তাহলে এটি আন্তর্জাতিক ব্যবসা বাণিজ্যে প্রভাব ফেলবে।

চীনের এই আচরণ নিয়ে সমালোচনা হচ্ছে মালদ্বীপসহ বিশ্বের বিভিন্ন গণমাধ্যমে।

অনেকেই বলছেন, চীনের কাছ থেকে ঋণ নেওয়ার পরিণতি কী হতে পারে তা মালদ্বীপের এই ঘটনা চোখে আঙুল দিয়ে দেখিয়ে দিয়েছে।