মার্কিন প্রেসিডেন্ট নির্বাচনে ডেমোক্র্যাটরা ভোট চুরি করতে পারে: ট্রাম্প

আসন্ন মার্কিন প্রেসিডেন্ট নির্বাচনে ভোট চুরির আশঙ্কা করছেন ডোনাল্ড ট্রাম্প। তিনি তার দলের সমর্থকদের সতর্ক করে দিয়ে বলেছেন, তাদের প্রতিদ্বন্দ্বী ডেমোক্র্যাটরা ৩ নভেম্বরের নির্বাচনে ভোট চুরি করতে পারেন। এ বিষয়ে সবাইকে সতর্ক থাকতে তাগিদ দেন ট্রাম্প।

যুক্তরাষ্ট্রের স্থানীয় সময় সোমবার উত্তর ক্যালিফোর্নিয়ার শার্লটে অনুষ্ঠিত রিপাবলিক পার্টির কনভেনশনের প্রথম দিনে ট্রাম্পের মনোনয়ন নিশ্চিত করা হয়। এ সময় রিপাবলিকান সমর্থকরা কণ্ঠভোটে ট্রাম্পের প্রতি সমর্থন পুনর্ব্যক্ত করেন। এ সময় তারা ‘আরও চার বছর’, ‘আরও চার বছর’ স্লোগান দেন।

ট্রাম্প তার বক্তৃতায় অভিযোগ করেন, ডেমোক্র্যাটরা তার জয় চুরি করার ষড়যন্ত্র করছেন। সেটি কিছুতেই সফল হতে দেয়া হবে না।

আসছে নির্বাচনের আগে বেশ চাপে আছেন প্রেসিডেন্ট ট্রাম্প। চলমান করোনাভাইরাস মহামারী ভালোভাবে মোকাবেলা করতে না পারা, বর্ণবৈষম্য আন্দোলন সামাল দিতে ব্যর্থ হওয়া এবং অভিবাসন নীতির কারণে রিপাবলিকানদের অবস্থান অনেকটা নড়বড়ে হয়ে পড়েছে বিশ্লেষকদের ধারণা।

তবে ট্রাম্প বললেন ভিন্নকথা। প্রতিপক্ষ ডেমোক্র্যাটরা ক্ষমতায় আসার জন্য অসাধু উপায় অবলম্বন করতে পারে বলে তার দাবি।

তারা নির্বাচনটা চুরি করে নিতে চাইছে। কারচুপি পূর্ণ নির্বাচন হলেই কেবল আমাদের কাছ থেকে এই নির্বাচন তাদের ছিনিয়ে নেয়ার একমাত্র উপায় হতে পারে।

এদিকে জরিপ অনুযায়ী, বর্তমানে ডেমোক্র্যাটিক প্রতিদ্বন্দ্বী জো বাইডেন থেকে পিছিয়ে আছেন ট্রাম্প।

দলীয় সম্মেলনে ট্রাম্প বলেন, কোভিড-১৯ ইস্যু ব্যবহার করে ডেমোক্র্যাটরা নির্বাচন চুরি করতে পারেন। এই নির্বাচন আমাদের কাছ থেকে তারা শুধু তখনই নিতে পারবেন, যখন নির্বাচনে কারচুপি হবে। আমরা জিততে যাচ্ছি।

২০১৬ সালের নির্বাচনের আগে জরিপে হিলারি ক্লিনটন থেকে পিছিয়ে থাকাবস্থায়ও ট্রাম্প দাবি করেছিলেন, নির্বাচনে কারচুপি হতে পারে।