ভয়াবহ জ্বালানি সংকটের মুখে ব্রিটেন

ভয়াবহ জ্বালানি সংকটের মুখে ব্রিটেন। বন্ধ অধিকাংশ পেট্রোল পাম্প। হঠাৎ দেশে রটে যায় পেট্রোল বহনকারী ট্রাক কম চলছে। ফলে, আগামী কয়েকদিন পেট্রোল নাও পাওয়া যেতে পারে।

সেই রটনার জেরে পেট্রোল পাম্পগুলিতে গতকাল রাত থেকে লম্বা লাইন। দেশটির জনগণও প্রয়োজনের চেয়ে অতিরিক্ত তেল সংগ্রহে রাখার চেষ্টা করছেন। ফলে সংকট আরো ঘণীভূত হয়েছে। প্রতিটি পাম্পে লাইন ধরে আছে শত শত গাড়ি। আন্তর্জাতিক সংবাদমাধ্য়মের প্রতিবেদন অনুসারে, দেশের ৯০ শতাংশ পেট্রোল পাম্প বন্ধ।

ব্রিটেনের পেট্রোল রিটেলার্স অ্যাসোসিয়েশন জানিয়েছে, দেশের ৯০ শতাংশ পেট্রোল পাম্পের মধ্যে অর্ধেকের বেশি পেট্রোল পাম্পে তেল নেই। গতকাল রাতের মধ্যে অধিকাংশ পেট্রোল পাম্পের তেল শেষ হয়ে যায়।

ব্রিটেনের পেট্রল রিটেলার্স অ্যাসোসিয়েশনের সভাপতি গর্ডন বামার দেশবাসীকে আতঙ্কিত না হওয়ার পরামর্শ দিয়েছেন। বলেছেন, দেশে যথেষ্ট পরিমাণ তেল মজবুত রয়েছে। জ্বালানি সংকটের কোনও সম্ভাবনা নেই।

সূত্রে পাওয়া খবরে জানা গিয়েছে, পরিস্থিতি স্বাভাবিক রাখতে সরকার সেনাবাহিনী মোতায়েন করার সিদ্ধান্ত নিয়েছে। জানা গিয়েছে, ব্রিটেনে শুধু জ্বালানি সংকট নেই, অধিকাংশ ট্রাক ড্রাইভার করোনায় আক্রান্ত হওয়ায় নিত্য প্রয়োজনীয় পণ্য সামগ্রী সরবরাহেও সংকট দেখা দিয়েছে।

অনেকের মতে, সরকার এখনই পদক্ষেপ না করলে আগামী দিনে ব্রিটেনে ভয়াবহ খাদ্য সংকট দেখা দিতে পারে। নিত্য প্রয়োজনীয় জিনিসের দাম বাড়বে। এর সুযোগ নেবে কালোবাজারিরা। তবে সরকারের তরফ থেকে বলা হচ্ছে, পরিস্থিতির দিকে নজর রাখা হচ্ছে। আতঙ্কিত হওয়ার কোনও কারণ নেই।