বোকো হারামের হামলা, ক্যামেরুনে ৬ সেনা নিহত

নাইজেরিয়ার জঙ্গিগোষ্ঠী বোকো হারামের হামলায় ক্যামেরুনের উত্তরাঞ্চলে একটি সেনাচৌকিতে অন্তত ছয় সেনা নিহত হয়েছেন। আহত হয়েছেন আরো অন্তত চারজন। গতকাল শনিবার স্থানীয় সময় ভোর ৪টার দিকে নাইজেরিয়া সীমান্তসংলগ্ন সাগমে এলাকায় এ ঘটনা ঘটে। দেশটির রাষ্ট্রীয় টেলিভিশন সিআরটিভির বরাতে এ তথ্য জানানো হয়।

সীমান্তসংলগ্ন এলাকায় প্রতিবেশী দেশ নাইজেরিয়া ও চাদে আধিপত্য বিস্তারকারী বোকো হারামের সঙ্গে কয়েক বছর ধরে সংঘর্ষ চলছে ক্যামেরুন সেনাবাহিনীর। কয়েক মাস ধরে চলা সংঘর্ষের ঘটনার মধ্যে এটি বড় বলে ধারণা করা হচ্ছে।

উত্তরাঞ্চলের সাগমে জেলার প্রধান লাজারে এনডোনগো এনডোনগো রয়টার্সকে বলেন, ‘স্থানীয় সময় ভোর ৪টার দিকে সাগমের সেনা ফাঁড়িতে একদল হামলাকারী আক্রমণ চালিয়েছে। তারা ছয় থেকে সাতটি গাড়ি ও মোটরসাইকেল নিয়ে হামলা চালায়। এটি বড় ধরনের আক্রমণ ছিল।

নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক দুটি সেনা সূত্র জানিয়েছে, হামলায় অন্তত আটজন নিহত এবং আরও বেশ কয়েকজন আহত হয়েছেন। স্থানীয় কর্তৃপক্ষ জানায়, বোকো হারামের শীর্ষ নেতা আবু বাকার শেকাউয়ের মৃত্যুর পর থেকে অঞ্চলটিতে সামরিক বাহিনীর ওপর হামলা বেড়েছে।

লাজারে এনডোনগো বলেন, ‘শেকাউয়ের মৃত্যুর পর থেকে ক্রমাগত হামলা বৃদ্ধি পেয়েছে এ অঞ্চলে। ইসলামিক স্টেট ওয়েস্ট আফ্রিকান প্রভিন্স (আইএসডব্লিউএপি), বোকো হারামের দখলে থাকা এলাকাগুলো নিয়ন্ত্রণে নেওয়ার চেষ্টা করছে। তারা আরো সুসংগঠিত হয়ে আক্রমণ চালাচ্ছে।

২০০৯ সাল থেকে ক্যামেরুন ও প্রতিবেশী দেশগুলোতে বোকো হারাম ও আইএসডব্লিউএপি জঙ্গিগোষ্ঠীর হামলায় ৩৬ হাজার মানুষ নিহত হয়েছেন। উত্তর–পূর্ব নাইজেরিয়ায় এই দুই গোষ্ঠীর হামলায় ঘরছাড়া হয়েছেন ২০ লাখেরও বেশি মানুষ।

সূত্র: রয়টার্স।