বেলজিয়ামে নেমেই খুশিতে নাচছে আফগান শিশু

শিশুটি জানে না, সে কোথায় এসেছে। শুধু বুঝতে পেরেছে এক মৃত্যুপুরীতে ছিল তারা। সেখান থেকেই তাদের নিয়ে নিরাপদ স্থানে পৌঁছেছেন বাবা-মা। আর সেই খুশিতেই তার আনমনা নৃত্য। কিংবা বলা যায় মনের আনন্দে লাফিয়ে লাফিয়ে চলা।

এ আনন্দ মুক্তির, এ আনন্দ বেঁচে থাকার। বেলজিয়াম বিমানবন্দরে নেমেই আনন্দনৃত্যের এ ছবি এখন সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে ভাইরাল। অন্য অনেক শিশুর মতো তারাও কাবুল বিমানবন্দরে কাটিয়েছে দুঃসহ সময়।

বাবার হাত কিংবা মায়ের আঁচল ধরেও আতঙ্ক পিছু ছাড়েনি তাদের। দেশ ত্যাগিচ্ছুকদের চিৎকার-চেঁচামেছি, শোরগোল কিংবা বিশৃঙ্খল পরিস্থিতি দাগ কেটেছে অবুঝ শিশুদের মনেও। সেই থেকেই তারা হয়তো আঁচ করতে পেরেছে, এ পরিস্থিতি তাদের জন্য নারকীয়।

আর ওই দমবন্ধ হওয়া পরিবেশ থেকে বেরিয়ে এসেই পুনর্জীবন পাওয়ার আনন্দেরই বহিঃপ্রকাশ দেখিয়েছে শিশুটি। আর ২৬ আগস্ট বেলজিয়াম মেলসব্রোয়েক মিলিটারি এয়ারপোর্টে পাওয়া দুর্লভ এই দৃশ্য ধরে রাখতে একটুও ভুল করেননি রয়টার্সের ফটোসাংবাদিক জোহান্না গেরন। শিশুটির নাম ও তার পরিচয় পাওয়া যায়নি -রয়টার্স