বিক্ষোভে উত্তাল দক্ষিণ আফ্রিকায় নিহত দুই শতাধিক

দক্ষিণ আফ্রিকার সাবেক প্রেসিডেন্ট জ্যাকব জুমার মুক্তির দাবিতে দেশজুড়ে বিক্ষোভে নিহত হয়েছেন ২১২ জন। এদিকে বিক্ষোভের জেরে অন্তত দুই হাজার ৫৫৪ জনকে গ্রেফতার করা হয়েছে।

তুরস্কভিত্তিক গণমাধ্যম আনাদোলু এ তথ্য জানায়। দক্ষিণ আফ্রিকার ক্ষুদ্র ব্যবসা উন্নয়নমন্ত্রী খুমবুদজো নাতশাভেনি বলেন, ২১২ জনের মধ্যে ১৮০ জন মারা গেছে শুধু কাওয়াজুলু-নাতাল প্রদেশে। বাকি ৩২ জনের মৃত্যু হয়েছে গাউটেং প্রদেশে।

এক সংবাদ সম্মেলনে খুমবুদজো বলেন, সহিংস বিক্ষোভ এবং লুটপাট শুরুর পর থেকে এখন পর্যন্ত দুই হাজার ৫৫৪ জনকে গ্রেফতার করা হয়েছে। এরমধ্যে এক হাজার ৬৯২ জনকে গ্রেফতার করা হয়েছে কাওয়াজুলু-নাতাল থেকে আর বাকি ৮৬২ জনকে গ্রেফতার করা হয়েছে গাউটেং থেকে।

তবে বর্তমানে পরিস্থিতি কিছুটা শান্ত বলে দাবি করেছেন এ মন্ত্রী। পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে মাঠে নামানো হয়েছে দেশটির সেনাবাহিনীকে। দক্ষিণ আফ্রিকার সাবেক প্রেসিডেন্ট জ্যাকব জুমাকে কারাগারে পাঠানোর পর থেকে তার মুক্তির দাবিতে দেশটিতে বিক্ষোভ ছড়িয়ে পড়ে। বিশেষ করে বিক্ষোভ শুরু হয় জ্যাকব জুমার এলাকা কাওয়াজুলু-নাতাল থেকে। পরে তা জোহানেসবার্গেও ছড়িয়ে পড়ে।

জ্যাকব জুমার মুক্তির দাবিতে বিক্ষোভ শুরুর পর থেকে শপিং মলে আগুন দেওয়া-ভাঙচুর চালানো হয়। জ্বালিয়ে দেওয়া হয় গাড়ি এবং ট্রাক।২৯ জুন জুমাকে ১৫ মাসের কারাদণ্ড দেন আদালত। ৭৯ বছর বয়সি জুমার বিরুদ্ধে চলমান দুর্নীতির তদন্তকারীদের তথ্যপ্রমাণ দিয়ে সহযোগিতা না করায় তাকে এ দণ্ড দেওয়া হয়। এরপর ৭ জুলাই জ্যাকব জুমা আত্মসমর্পণ করেন।