পাকিস্তানের রাফাল যুদ্ধবিমান প্রয়োজন নেই, যে অস্ত্র ভান্ডার আছে তাই ভারতের জন্য যথেষ্ট

ফ্রান্সের তৈরি ৫টা রাফালে বিমান ভারতে আসার পরই চিন্তা বেড়েছে পাকিস্তানের। আর এই চিন্তা প্রকাশ তো করছেই না বরংন বীরত্ব দেখানোর চেষ্টা করছে তারা।

বৃহস্পতিবার সেই একই পথে হাঁটল পাকিস্তান সেনার মিডিয়া উইংয়ের প্রধান মেজর জেনারেল বাবর ইফতিকার। ভারতের অস্ত্রভাণ্ডারে রাফালে অন্তর্ভুক্ত হওয়ায় তারা যে ভয় পাচ্ছে না তা বোঝানোর চেষ্টা করল।

বৃহস্পতিবার একটি সাংবাদিক বৈঠকে অংশ নিয়ে পাকিস্তানের ইন্টার সার্ভিস পাবলিক রিলেশনসের ডিরেক্টর জেনারেল বাবর ইফতিকার বলেন, ‘যেভাবে ফ্রান্স থেকে পাঁচটি রাফালে নিয়ে আসা হল তাতে ভারত যে নিরাপত্তাহীনতায় ভুগছে তা পরিষ্কার হয়ে গিয়েছে। আতঙ্কিত হওয়ার জেরে তারা নিজেদের দেশের প্রতিরক্ষা খাতের খরচও অনেক বাড়িয়েছে। তবে ভারত পাঁচটা রাফালে নিয়ে আসুক বা ৫০০টা, পাকিস্তান সবসময় তাদের জন্য প্রস্তুত রয়েছে। ভারতের কাছে রাফালে থাকায় আমরা কোনওভাবেই ভীত নই।’

এরপরই কিছুটা কটাক্ষের সুরে তিনি বলেন, ‘যে কোনও পরিস্থিতির মোকাবিলা করার মতো ক্ষমতা রয়েছে পাকিস্তানের সেনার। তাই ভারতের এই পদক্ষেপে আমরা চিন্তিত নই। বরং লাদাখে চিনের সঙ্গে সংঘর্ষের পর থেকে ভারতই নিরাপত্তাহীনতায় ভুগছে। লাদাখে তারা যত সেনা মোতায়েন করেছে তাতে বিশ্বের মধ্যে প্রতিরক্ষা খাতে সবথেকে বেশি খরচ হচ্ছে। আমরা সেই ভুল করব না। আমাদের কাছে যা অস্ত্র রয়েছে তাতে এভাবে খরচ করার কোনও দরকারই নেই আমাদের।