পরিক্ষিত নেতা-কর্মীরাই আওয়ামী লীগের মনোনয়ন পাবেন: কৃষিমন্ত্রী

নৈতিক শক্তির অধিকারী, দলের আদর্শের প্রতি অনুগত ও পরিক্ষিত নেতা-কর্মীরাই নির্বাচনে প্রার্থী হিসেবে মনোনয়ন পাবেন বলে মন্তব্য করেছেন কৃষিমন্ত্রী ও আওয়ামী লীগের প্রেসিডিয়াম সদস্য ড. মো: আব্দুর রাজ্জাক।

তিনি বলেন, সারা দেশে ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচন চলছে। এ নির্বাচনে আওয়ামী লীগের মনোনীত প্রার্থীরা নৌকা প্রতীকে নির্বাচন করছেন। এ নৌকা অত্যন্ত গর্বের, অহংকারের ও বাংলাদেশের স্বাধীনতার প্রতীক। এটি পেতে হলে প্রার্থীকে নৈতিক শক্তির অধিকারী, দলের আদর্শের প্রতি অনুগত,ত্যাগী ও দীর্ঘদিনের পরিক্ষিত নেতা-কর্মী হতে হবে। দলে হঠাৎ করে এসেই মনোনয়ন পাবেন না।

রবিবার (৩ অক্টোবর) টাঙ্গাইলের ধনবাড়ীতে উপজেলা আওয়ামী লীগ কার্যালয়ে স্থানীয় নেতাকর্মীদের সঙ্গে মতবিনিময় সভায় মন্ত্রী এসব কথা বলেন। কৃষিমন্ত্রীর মতে, একজন প্রার্থীর জনপ্রিয়তা, তৃণমূলের সিদ্ধান্তসহ নানান দিক বিবেচনা করেই প্রার্থী মনোনয়ন করা হবে। তারপরও কেউ ব্যক্তিগত স্বার্থে দলের সিদ্ধান্তের বিরুদ্ধে গিয়ে বিদ্রোহী বা স্বতন্ত্র প্রার্থী হলে তাকে কঠোর শাস্তির মুখোমুখি হতে হবে।

স্থানীয় নেতাকর্মীদের উদ্দেশে ড. রাজ্জাক আরও বলেন, তৃণমূলের কর্মীবাহিনী ও তাদের ঐক্যই দলের সবচেয়ে বড় শক্তি। দলের গঠনতন্ত্র ও আইন মেনে শৃঙ্খলা ও ঐক্য বজায় রাখতে হবে। আমাদের মনে রাখতে হবে, ধর্মান্ধ ও অপশক্তির বিরুদ্ধে এখনও আমাদেরকে আন্দোলন করতে হয়। এখনও তারা আমাদেরকে, প্রগতিশীল আন্দোলনের মানুষ, বুদ্ধিজীবী ও বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষকদেরকে হত্যা করে। নিজেদের মধ্যে ঐক্য ধরে না রাখতে পারলে এদের বিরুদ্ধে টিকে থাকা যাবে না। স্বাধীনতাবিরোধী শক্তি, রাজাকার-আলবদর ও ধর্মান্ধরা আবার দেশ দখল করবে।