নেশার টাকা না পেয়ে মাকে হত্যা, ঘাতক ছেলে আটক

লক্ষ্মীপুরের রায়পুরে নেশার টাকা না পেয়ে মাকে কুপিয়ে হত্যা করেছে ছেলে। আজ শুক্রবার সকাল ১০ টার দিকে উপজেলার রাখালিয়া গ্রামে নিজ বাড়ীতে এ ঘটনা ঘটে। এ ঘটনায় ঘাতক ছেলে মো. জাফরকে আটক করেছে পুলিশ। নিহত মা শেফালী বেগম (৬০)-এর মরদেহ উদ্ধার করে পুলিশ লক্ষ্মীপুর সদর হাসপাতালে প্রেরণ করে।

পুলিশ ও স্থানীয়রা জানায়, স্থানীয় রাখালীয়া গ্রামের সর্দরবাড়ীর হোসেন আহমদের ছেলে জাফর গত কয়েক মাস ধরে তার বন্ধুদের সাথে আড্ডা দিয়ে মাদক সেবন করে অনেক টাকা ঋণগ্রস্থ হয়। ওই টাকা পরিশোধ করতে বিভিন্ন সময়ে তার মাকে চাপ দেয়াসহ খারাপ আচরণ করতেন।

আজ শুক্রবার সকালে মায়ের সাথে তার বাকবিতন্ডা হয়। একপর্যায়ে সে তার মাকে বিছানায় ফেলে দা দিয়ে এলোপাতাড়ি কুপিয়ে হত্যা করে। এসময় প্রতিবেশীরা ছুটে এসে তাকে আটক করলেও মাকে রক্ষা করতে পারেনি বলে জানা যায়।

এদিকে ঘটনার খবর পেয়ে রায়পুর থানা পুলিশ ঘটনাস্থলে গিয়ে জাফরকে আটক করে থানা হেফাজতে নিয়ে যায়। নিহতের মরদেহ ময়নাতদন্তের জন্য হাসপাতালে পাঠায়।

নিহতের স্বামী হোসেন আহমদ জানান, দীর্ঘ দিন ধরে আমার ছোট ছেলে জাফর নেশাগ্রস্ত। বিভিন্ন সময়ে তার মায়ের কাছে সে টাকা চাইতো। তা না পেয়ে এদিন তার মাকে কুপিয়ে হত্যা করে বলে জানান তিনি।

এ ব্যাপারে লক্ষ্মীপুরের সহকারি পুলিশ সুপার (রায়পুর সার্কেল)স্পিনা রানী প্রামানিক জানান, ঘাতক জাফর মানসিক বিপর্যস্ত ছিল। টাকা না পেয়ে তার মাকে সে কুপিয়ে হত্যা করেছে। খবর পেয়ে পুলিশ ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছে। ঘাতককে আটক করা হয়েছে মামলার প্রস্তুতি চলছে বলে জানান তিনি।