‘দুর্নীতিবাজ’ নেতানিয়াহুর বিরুদ্ধে ইসরাইলিদের বিক্ষোভ

আবারো সরকার বিরোধী বিক্ষোভে উত্তাল ইসরাইল। শনিবার প্রধানমন্ত্রী বিনইয়ামিন নেতানিয়াহুর পদত্যাগ দাবিতে জেরুজালেমে তার বাসভবনের সামনে জড়ো হয়ে বিক্ষোভ করে কয়েক হাজার মানুষ।

এসময় পুলিশ বাধা দিলে সংঘর্ষে বেশ কয়েকজন আহত হন। এ ঘটনায় অনেককে আটক করা হয়েছে। তবে, নিজের বিরুদ্ধে ওঠা সব অভিযোগ অস্বীকার করেছেন প্রধানমন্ত্রী নেতানিয়াহু।

স্লোগানে স্লোগানে মুখর জেরুজালেম। স্থানীয় সময় শনিবার রাতে প্রধানমন্ত্রী বিনইয়ামিন নেতানিয়াহুর সরকারি বাসভবনের সামনে জড়ো হন হাজার হাজার ইসরাইলি।

নেতানিয়াহুর বিরুদ্ধে দুর্নীতি, অনিয়ম ও মহামারী করোনা মোকাবিলায় ব্যর্থতার অভিযোগ তুলে টানা ১১ সপ্তাহ ধরে বিক্ষোভ কোরে আসছেন ইসরাইলের সাধারণ মানুষ। শনিবারের বিক্ষোভে পুলিশ বাঁধা দিলে উভয় পক্ষের মধ্যে ধস্তাধস্তির ঘটনা ঘটে। এতে পুলিশসহ বেশ কয়েকজন আহত হন। পরে, অনেককে আটক করে পুলিশ।

যতোই বাঁধা আসুক প্রধানমন্ত্রী নেতানিয়াহুর পদত্যাগের আগ পর্যন্ত আন্দোলন চালিয়ে যাওয়ার কথা জানান বিক্ষোভকারীরা। তারা বলেন, নানা অভিযোগ নিয়ে আমরা এখানে এসেছি। সবাই পরিবর্তন চাই।

দুর্নীতিবাজ কোনো সরকার দেশের দায়িত্বে থাকতে পারে না। ইসরাইলে এখন লাখ লাখ মানুষ বেকার। তারা কিছু না করতে পারলে পদে থাকার কোনো যোগ্যতা নেই। যথেষ্ট হয়েছে। আপনি এখন বিদায় নেন। আমরা আপনাকে আর চাই না।

এদিকে, নিজের বিরুদ্ধে চলা বিক্ষোভের তীব্র নিন্দা জানিয়েছেন প্রধানমন্ত্রী বিনইয়ামিন নেতানিয়াহু। করোনা আঘাত হানলেও অন্য দেশের তুলনায় তাদের অর্থনৈতিক অবস্থা অনেক ভালো বলেও দাবি করেন তিনি।

 

চলতি বছরের মে মাসে পঞ্চমবারের মতো ইসরাইলের প্রধানমন্ত্রীর দায়িত্ব নেন নেতানিয়াহু। তবে, করোনা ভাইরাস মহামারী রূপে আঘাত হানায় দেশটিতে আকস্মিক বেড়ে যায় বেকারত্ব। ইসরাইলে এখন পর্যন্ত ১ লাখ তিশ হাজার মানুষ ভাইরাসটিতে আক্রান্ত হয়েছে। মারা গেছেন এক হাজারের বেশি মানুষ।