তালেবান বিরোধীদের গ্রেফতার করা হবে: তালেবান সেনাপ্রধান

তালেবানের বিরোধিতাকারীদের গ্রেফতার করা হবে বলে জানিয়েছেন আফগানিস্তানের নতুন সেনাপ্রধান, তালেবানের জ্যেষ্ঠ নেতা কারি ফসিহউদ্দিন।তালেবান সেনাপ্রধান এক বিবৃতিতে জানিয়েছেন, আমরা কোনো গৃহযুদ্ধ ঘটতে দেব না।

যারা দেশের নিরাপত্তা ও স্থিতিশীলতা বিঘ্নিত করছে তাদের দমন করা হবে। যারা তালেবানের বিরোধিতা করবে তাদের গ্রেফতার করা হবে। পরে তালেবানের মুখপাত্র আহমাদুল্লাহ মুত্তাকী বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।

এছাড়া আফগান সেনাবাহিনীর পুনর্গঠন নিয়ে নিজের পরিকল্পনা জানিয়েছেন তালেবান সেনাপ্রধান। কাবুলে এক সংবাদ সম্মেলনে তিনি জানান, সুসংগঠিত কাঠামোর সঙ্গে দেশের একটি নিজস্ব ‘নিয়মিত এবং সুশৃঙ্খল’ সেনাবাহিনী থাকবে।

তিনি আরও জানান, এই সেনাবাহিনীর সৈন্যদের আফগানিস্তানের সীমান্ত রক্ষার প্রশিক্ষণ দেওয়া হবে। আফগান সেনাবাহিনীর পুনর্গঠনের জন্য আলোচনা অব্যাহত রয়েছে বলেও জানিয়েছেন তালেবান সেনাপ্রধান।

তিনি জানান, এই আফগান সেনা হবে নিয়মিত, সুশৃঙ্খল ও শক্তিশালী। তালেবান আফগানিস্তানে গৃহযুদ্ধ শুরু করতে দেবে না বলেও এ সময় জানান তিনি।

এ ব্যাপারে মুত্তাকী টুইটারে জানান, আফগানিস্তানে শিগগিরই একটি সুসংগঠিত সেনাবাহিনী গঠন করা হবে। মুত্তাকী আরও বলেন, আফগানিস্তানের সশস্ত্র বাহিনীর জন্য যেসব সৈন্য নিয়োগ করা হবে তাদের আফগানিস্তান রক্ষার জন্য প্রশিক্ষণ দেওয়া হবে।

গত মাসে কাবুল দখলের প্রায় তিন সপ্তা পর অন্তর্বর্তীকালীন মন্ত্রিসভার ঘোষণা করে তালেবান। সেনা প্রধানের দায়িত্ব পাওয়া ফসিহউদ্দিনকে ২০১৯ সালে মৃত ঘোষণা করেছিল সাবেক আশরাফ গনির সরকার।