টম ক্রুজের শুটিং সেটে আগুন, ক্ষতি ২২ কোটি টাকা

টম ক্রুজের শ্বাসরুদ্ধকর অভিযানের ফ্র্যাঞ্চাইজি ‘মিশন ইমপসিবল’ সপ্তম কিস্তির শুটিং সেটে আগুন লেগে ব্যাপক ক্ষয়ক্ষতি হয়েছে। একটি মোটরসাইকেল দুর্ঘটনায় আগুন ধরে যায় ব্যয়বহুল শুটিং সেটে। জানা যায়, তাতে অন্তত ২৬ লাখ ডলার বা প্রায় ২২ কোটি টাকার ক্ষতি হয়েছে।

করোনা মহামারির কারণে এমনিতেই থমকে গিয়েছিল ‘মিশন ইমপসিবল’র শুটিং। কয়েক মাস বন্ধ ছিল টম ক্রুজের ব্যস্ততা। অনেক প্রতকূলতা পেরিয়ে সম্প্রতি যুক্তরাজ্যে শুরু হয় সিনেমাটির কাজ। কিন্তু তাতেও ঘটলো বিপত্তি।

জানায়, অক্সফোর্ডশায়ারে শুটিং সেটে একজন স্টান্টম্যানের মোটরসাইকেলে আগুন ধরে যায়। তবে কেউ হতাহত হয়নি। কিন্তু ক্ষতি হয়েছে প্রচুর। ফলে আবারও পিছিয়ে গেল সিনেমার কাজ। আর হতাশ হতে হচ্ছে টম ক্রুজকেও। দুর্ঘটনার সময় তিনি পাশেই আরেকটি দৃশ্যে অভিনয় করছিলেন।

জানা যায়, ছয় সপ্তাহ ধরে ওই স্টান্টের জন্য প্রস্তুতি নেওয়া হয়েছে। তৈরি করা হয়েছে কাঙ্ক্ষিত সেট। আর তাতে খরচ হয়েছে প্রায় ২২ কোটি টাকা। এটা অনেক বড় একটা চ্যালেঞ্জ ছিল বলে জানিয়েছে সংবাদ সূত্র।

সূত্র জানায়, দুর্ভাগ্যক্রমে হিসাবনিকাশে ত্রুটি ছিল। মোটরসাইকেলের টায়ারের ঘর্ষণে উৎপন্ন তাপের হিসাবটা ভুল হয়েছিল। ফলে কার্ডবোর্ডে আগুন ধরে যায়। সৌভাগ্যক্রমে কেউ আহত হয়নি। কিন্তু এটা সামগ্রিকভাবেই একটা বিপর্যয়। এতে খরচের কথা না হয় বাদই দিলাম। টম ক্রুজ খুব হতাশ হয়ে পড়েছেন। কেউই আর দেরি করতে চাচ্ছেন না।

হলিউডভিত্তিক পত্রিকা  জানায়, ‘মিশন ইমপসিবল’ ফ্যাঞ্চাইজির সপ্তম কিস্তি ২০২১ সালের ২৩ জুলাই মুক্তি পাওয়ার কথা ছিল। কিন্তু নানান প্রতিকূলতায় আপাতত মুক্তির দিন নির্ধারণ করা হয়েছে আগামী বছরের ১৯ নভেম্বর। আর অষ্টম কিস্তি মুক্তি পাওয়ার কথা ছিল ২০২২ সালের ৫ আগস্ট। সেটাও পিছিয়ে নতুন তারিখ নির্ধারিত হয়েছে নভেম্বর ৪, ২০২২।

সূত্র: দ্য ডেইলি মেইল