‘জেরুজালেমে দূতাবাস স্থানান্তরকারীদের সঙ্গে সম্পর্ক ছিন্ন করবে ফিলিস্তিন’

ফিলিস্তিন মুক্তি সংস্থা- পিএলও’র নির্বাহী কমিটির মহাসচিব সায়েব এরিকাত বলেছেন, যেসব দেশ তাদের দূতাবাস তেল আবিব থেকে জেরুজালেম আল-কুদসে স্থানান্তর করবে সেসব দেশের সঙ্গে কূটনৈতিক সম্পর্ক ছিন্ন করবে ফিলিস্তিনের স্বশাসিত সরকার।

তিনি গতকাল (রোববার) পশ্চিম তীরের রামাল্লায় এ বক্তব্য দেন। এরিকাত বলেন, ইসরাইলের রাজধানী তেল আবিব থেকে জেরুজালেমে দূতাবাস স্থানান্তর আন্তর্জাতিক আইনের পরিপন্থি।

এদিকে ফিলিস্তিন স্বশাসন কর্তৃপক্ষের আনুষ্ঠানিক মুখপাত্র নাবিল আবু রাদিনা বলেছেন, জেরুজালেম আল-কুদস স্বাধীন ফিলিস্তিন রাষ্ট্রের রাজধানী হিসেবে পরিচিত; কাজেই আমেরিকা ও ইহুদবিাদী ইসরাইল এই ঐতিহাসিক বাস্তবতাকে উল্টে দিতে পারবে না।

গত শুক্রবার মার্কিন মধ্যস্থতায় কসোভোর সঙ্গে বৈরিতার অবসান ঘটানোর ঘোষণা দিয়ে সার্বিয়া বলেছে যে, তারা তাদের দূতাবাস তেল আবিব থেকে সরিয়ে অধিকৃত জেরুজালেম আল কুদসে নিয়ে যাবে।

মুসলিম অধ্যুষিত কসোভাও প্রতিশ্রুতি ব্যক্ত করেছে যে তারাও দখলদার ইসরাইলকে স্বীকৃতি দেবে এবং একই সঙ্গে তারা ইসরাইলের স্বীকৃতির পর জেরুজালেম আল কুদসে তাদের নিজস্ব দূতাবাস স্থাপন করবে।

সার্বিয়া ও কসোভো এমন সময় এ সিদ্ধান্ত নিল যখন জাতিসংঘ নিরাপত্তা পরিষদের ৪৭৮ নম্বর প্রস্তাবে জেরুজালেম শহরে যেকোনো কূটনৈতিক দপ্তর খোলা নিষিদ্ধ।