ছেলেকে বাঁচাতে যাওয়ায় বাবাকে পিটিয়ে হত্যা করল আ’লীগ নেতা

সাতক্ষীরার তালায় চিংড়ি ঘেরে মাছ ধরাকে কেন্দ্র করে লুৎফর নিকারী (৬০) নামে এক বৃদ্ধকে পিটিয়ে হত্যার অভিযোগ উঠেছে। এ ঘটনায় পুলিশ তালা উপজেলা আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক ও উপজেলা পরিষদের ভাইস চেয়ারম্যান মশিউর রহমানকে আটক করেছে।

নিহতের ভাতিজা রুহুল আমিন নিকারী জানান, নলবুনিয়া বিলে তার চাচাতো ভাই সেলিম নিকারী মাছ ধরছিলেন। ওই স্থানেই ভাইস চেয়ারম্যান সরদার মশিয়ার রহমানের মাছের ঘের।

ঘের থেকে মাছ ধরার অভিযোগে সেলিমকে আটকে রাখেন মশিয়ারের সহযোগী রনি। এরপর মশিয়ার, রনি ও একই গ্রামের তুহিন শেখ মিলে তাকে মারধর করে। তিনি আরো বলেন, খবর পেয়ে সেলিমকে বাঁচাতে ছুটে যান বাবা লুৎফর নিকারী।

এরপর ভাইস চেয়ারম্যান ও তার সহযোগীরা তাকেও মারধর করে। এক পর্যায়ে লুৎফর নিকারীর গলায় গামছা পেঁচিয়ে তার শ্বাসরোধ করা হয়। এতে ঘটনাস্থলেই লুৎফর নিকারী মারা যান ও তার ছেলে সেলিম অচেতন হয়ে পড়েন।

সেলিম বর্তমানে তালা হাসপাতালে ভর্তি আছেন। তার কানের পর্দা ফেটে গেছে। তালা থানার ওসি মেহেদী রাসেল জানান, ৯৯৯-এ স্থানীয়দের কল পেয়ে রাতেই ভাইস চেয়ারম্যান সরদার মশিয়ার রহমানকে আটক করা হয়। তাকে জিজ্ঞাসাবাদ ও ঘটনার তদন্ত চলছে। পরবর্তীতে আইনি ব্যবস্থা নেয়া হবে।