চিরকুট লিখে স্কুলছাত্রের আত্মহত্যা

হবিগঞ্জের শায়েস্তাগঞ্জ উপজেলায় গলায় ফাঁস দিয়ে এক স্কুলছাত্রের আত্মহত্যার খবর পাওয়া গেছে। বাবার সঙ্গে অভিমান করে সে আত্মহননের পথ বেছে নেয় বলে প্রাথমিকভাবে ধারণা করছে পুলিশ।

শুক্রবার (৪ জুন) রাত ৮টার দিকে উপজেলার নুরপুর ইউনিয়নের সুতাং বাজারে এ ঘটনা ঘটে। মাইনুর রশিদ মাহিন (১৫) নামের ওই স্কুলছাত্র উপজেলার নুরপুর ইউনিয়নের পুরাসুন্দা গ্রামের পল্লী চিকিৎসক আরব আলীর ছেলে। সে উপজেলার শাহজীবাজার পল্লী বিদ্যুৎ উন্নয়ন বোর্ড উচ্চ বিদ্যালয়ের (পিডিবি) দশম শ্রেণির ছাত্র ছিল।

স্থানীয় সূত্র জানায়, ওই ছাত্রের পরিবার সুতাং বাজারের একটি বাসায় ভাড়া থাকে। শুক্রবার পারিবারিক বিষয় নিয়ে বাবা তাকে গালমন্দ করেছিলেন। এরই জেরে সিলিং ফ্যানের সঙ্গে ওড়নায় ফাঁস লাগিয়ে আত্মহত্যা করে সে।

খবর পেয়ে শায়েস্তাগঞ্জ থানা পুলিশের একটি দল মরদেহ উদ্ধার করে নিয়ে আসে। পুলিশ মাহিনের মরদেহের পাশে একটি চিরকুট পায়। যেখানে আত্মহত্যার বিষয়টি লেখা ছিল।

এ বিষয়ে শায়েস্তাগঞ্জ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) অজয় চন্দ্র দেব বলেন, লাশ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য হবিগঞ্জ ২৫০ শয্যা হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে। নিহত মাহিনের রুমে একটি চিরকুট পাওয়া গেছে। চিরকুটের লেখা পড়ে সে আত্মহত্যা করেছে বলে প্রাথমিকভাবে ধারণা করা হচ্ছে । ময়নাতদন্তের রিপোর্ট পেলে বিস্তারিত জানা যাবে।