কারাবন্দি বলিভিয়ার সাবেক প্রেসিডেন্ট অ্যানেজের আত্মহত্যার চেষ্টা

বলিভিয়ার সাবেক প্রেসিডেন্ট জিনাইন অ্যানেজ কারাগারে আত্মহত্যার চেষ্টা করেছিলেন। তবে সৌভাগ্যক্রমে তিনি বেঁচে গেছেন এবং বর্তমানে তার অবস্থা স্থিতিশীল আছে। দেশটির একজন সরকারি কর্মকর্তা জানিয়েছেন, ২০১৯ সালে বিক্ষোভে বেশ কয়েক জনের মৃত্যুর ঘটনায় প্রসিকিউটররা তার বিরুদ্ধে গণহত্যার অভিযোগ আনেন। এসব অভিযোগে বিপর্যস্ত হয়ে তিনি আত্মহত্যার চেষ্টা করেন। খবর প্রকাশ করেছে আল-জাজিরা।

কারাগারের পরিচালক জুয়ান কার্লস লিমপিয়াস পরে বলেন, ‘আমরা কোনো সন্দেহ ছাড়াই বলতে পারি যে, তার অবস্থা স্থিতিশীল আছে। তিনি বলেন, বর্তমানে জিনাইন অ্যানেজ তার পরিবারের সঙ্গে আছেন। তার মানসিক অবস্থার উন্নতির জন্য তার পরিবারের সদস্যদের পাশে থাকা বেশ গুরুত্বপূর্ণ।

অ্যানেজের মেয়ে ক্যারোলিনা রিবেরা বলেন, ভয়াবহ মানসিক অবসাদের কারণে গত শনিবার তার মা আত্মহত্যার চেষ্টা করেন। দীর্ঘ কারাবাসের কারণে তিনি মানসিকভাবে দুর্বল হয়ে পড়েছিলেন। অপরদিকে অ্যানেজের আইনজীবী নর্মা কুয়েলার বলেন, সাবেক এই প্রেসিডেন্টের সহায়তা প্রয়োজন। দীর্ঘদিন ধরেই তাকে হয়রানি করা হচ্ছে।

৫৪ বছর বয়সি অ্যানেজকে চলতি বছরের শুরুর দিকে আটক করা হয়। ২০১৯ সালে দীর্ঘদিন ক্ষমতায় থাকা সাবেক প্রেসিডেন্ট ইভো মোরালেসকে ক্ষমতাচ্যুত করার জন্য তিনি অভ্যুত্থানে অংশ নিয়েছিলেন বলে তার বিরুদ্ধে অভিযোগ আনা হয়। তবে সব ধরনের অভিযোগ অস্বীকার করে অ্যানেজ বলেন, তিনি রাজনৈতিক প্রতিহিংসার শিকার। বিচার চলাকালীন অবস্থায় তাকে কারাগারে পাঠানো হয়।