একদিন মদিনাকেও নিজেদের বলবে ইসরায়েল, আশঙ্কা ফিলিস্তিনি নেতার

একদিন হয়তো মুসলিমদের পবিত্র ভূমি মদিনাকেও নিজেদের বলে দাবি করবে মধ্যপ্রাচ্যের ইহুদিবাদী দখলদার রাষ্ট্র ইসরায়েল। এমনটাই আশঙ্কা করেছেন নির্যাতিত রাষ্ট্র ফিলিস্তিনের ইসলামি স্কলার ওমার ফোরা।

সম্প্রতি এক সাক্ষাৎকারে তিনি বলেছিলেন, নীল নদ থেকে ফোরাত নদী পর্যন্ত পুরো ভূমিতে বৃহত্তর ইসরায়েল রাষ্ট্র প্রতিষ্ঠার পরিকল্পনা রয়েছে ইহুদিবাদীদের। অবশেষে তারা মদিনার ভূমি এবং আরব উপত্যকার বিভিন্ন অঞ্চলের দাবি করবে।

ফিলিস্তিনের ইসলামি জিহাদের সহযোগী আল কুদস আল ইয়াউমের সঙ্গে আলোচনায় গত ১৯ আগস্ট ওমার ফোরা এই কথা বলেন। এ সময় তিনি আরও বলেন, ইসরায়েল শুধুমাত্র ফিলিস্তিনিদের বিপদে ফেলছে না। দেশটি পুরো আরব বিশ্বের জন্য হুমকি।

 

তিনি আরও বলেন, নীল নদের পূর্বতীরে দূতাবাস খুলতে অস্বীকৃতি জানিয়েছে ইসরায়েল। কারণ তারা মনে করে নীল নদের পূর্ব তীরে থেকে ফোরাত নদী পর্যন্ত বাইবেলে উল্লেখিত ইসরায়েলের ভূমি।

 

ফিলিস্তিনি স্কলারের মতে, ইসরায়েল নীল নদের পশ্চিম তীরে দূতাবাস খুলেছে। কারণ তারা নীল নদের পশ্চিম অংশকে নিজেদের ভূখণ্ডের বাইরের অংশ বলে মনে করে।

 

তিনি বলেছিলেন, আল্লাহর কসম ওইদিন আসবে যখন, ইসরায়েল মদিনার ভূমি দাবি করবে। কুরাইজা, নাধির, বানু কাইনুদা এবং খায়বারে থাকা ইহুদি উপজাতিদের ভূমি ফেরত চাইবে। এটাই হচ্ছে ইহুদি জাতীয়তাবাদী আন্দোলনের সত্যিকারের লক্ষ্য।

সূত্র : জিউস নিউজ সিন্ডিকেট