ইদলিবের দুটি এলাকায় সন্ত্রাসীরা তাদের উপস্থিতি জোরদার করছে: রাশিয়া

রাশিয়ার প্রতিরক্ষা মন্ত্রণালয় সতর্ক করে বলেছে, সিরিয়ায় উত্তর-পশ্চিমাঞ্চলীয় ইদলিব প্রদেশের দুটি এলাকায় উগ্র তাকফিরি সন্ত্রাসীরা তাদের উপস্থিতি জোরদার করছে। তাদের অবস্থান সুসংহত করার জন্য ওই দুটি এলাকায় তারা সামরিক সরঞ্জাম এবং সাঁজোয়াযান পাঠাচ্ছে।

এরইমধ্যে সন্ত্রাসীরা আশপাশের এলাকায় মর্টার হামলা জোরদার করেছে। রুশ প্রতিরক্ষা মন্ত্রণালয়ের সেন্টার ফর রিকনসিলিয়েশন অব অপজিট সাইডস ইন সিরিয়া’র উপপ্রধান রিয়ার অ্যাডমিরাল আলেকজান্ডার ভাদিম কুলিত গতকাল (শুক্রবার) বলেন, সন্ত্রাসীরা ইদলিব প্রদেশের দুটি এলাকায় তাদের অস্ত্র ও গোলাবারুদের বহর পাঠিয়েছে। সিরিয়ার সরকারি সেনারা জানিয়েছেন যে, সন্ত্রাসীরা গোলাবর্ষণের মাত্রা অনেক বাড়িয়েছে।

অ্যাডমিরাল কুলিত বলেন, সন্ত্রাসীরা ওই দুটি এলাকা থেকে সিরিয়ার সরকারি সেনাদের অবস্থানে গোলাবর্ষণ বাড়াচ্ছে। এদিকে, সিরিয়ার সামরিক বাহিনীর হামলায় উগ্র সন্ত্রাসী গোষ্ঠী হায়াত তাহরির আল-শামের ঘোষিত মুখপাত্র আবু খালিদ আশ-শামি নিহত হয়েছে। এছাড়া তার সঙ্গে মারা গেছেন সন্ত্রাসীদের গণমাধ্যম জনসংযোগ সমন্বয়কারী আবু মুস’আব।

সিরিয়ার বেশিরভাগ এলাকা সন্ত্রাসী মুক্ত হলেও ইদলিব এখনো তাদের ঘাঁটি হিসেবে ব্যবহৃত হচ্ছে। ইদলিবের একটা বিরাট এলাকাকে যুদ্ধমুক্ত অঞ্চল হিসেবে ঘোষণা করার পর সন্ত্রাসীরা যুদ্ধমুক্ত অঞ্চলের সুবিধা কাজে লাগিয়ে আশপাশে সিরিয়ার সরকারি বাহিনীর অবস্থানে হামলা চালায়। তুরস্ক ও রাশিয়ার মধ্যে এক চুক্তির মধ্যদিয়ে ইদলিবে যুদ্ধমুক্ত অঞ্চল প্রতিষ্ঠা করা হয়।

সূত্রঃ পার্সটুডে