আফগান সেনাবাহিনী নিঃশ্বাসের গতিতে ভেঙে পড়ে

বিশ্বকে হতবাক করে দিয়ে অবিশ্বাস্যভাবে মাত্র ৭ দিনে রাজধানী কাবুলসহ সমগ্র আফগানিস্তান দখল করে নিয়েছে তালেবান। দেশটির সর্বত্র এখন তালেবানের পতাকা পত পত করে উঁড়ছে।

পৃথিবীর সর্বাধুনিক রাষ্ট্র যুক্তরাষ্ট্রের সেনাবাহিনী প্রশিক্ষণ ও সমরাস্ত্র পাওয়া প্রায় তিন লাখ সদস্যের আফগান জাতীয় প্রতিরক্ষা ও নিরাপত্তা বাহিনী (এএনডিএসএফ) কেন ৮০ হাজারের ক্ষুদ্র তালেবান বাহিনীকে প্রতিরোধ করতে পারল না সেই হিসাব কষছেন অনেকে।

আফগানিস্তানে তালেবানের পুনুরুত্থানের জন্য পাকিস্তান, ইরান, চীন, রাশিয়াসহ অনেক দেশ যুক্তরাষ্ট্রকে দায়ী করছে। এসব দেশের অভিযোগ- যুক্তরাষ্ট্রের প্রশিক্ষণ দেওয়া আফগান বাহিনী, তালেবানকে প্রতিরোধ করতে ব্যর্থ হয়েছে।

এবার এ নিয়ে মুখ খুলেছেন জার্মানির চ্যাঞ্ছেলর অ্যাঞ্জেলা মার্কেল। তিনি বলেছেন, তালেবানকে আফগান সেনাবাহিনী মূল্যায়ন করতে ভুল করেছে। নিঃশ্বাসের গতিতে আফগান সেনাবাহিনী ভেঙে পড়েছে।

এক নির্বাচনী কর্মসূচিতে অংশ নিয়ে জার্মান চ্যাঞ্ছেলর বলেন, আমরা প্রত্যাশা করেছিলাম আফগান সেনাবাহিনী তালেবানের বিরুদ্ধে শক্ত প্রতিরোধ গড়ে তুলবে। কিন্তু তারা ব্যর্থ হয়েছে।

জার্মান এখন আফগানিস্তান থেকে মানুষকে উদ্ধার করার প্রতি গুরুত্ব দিচ্ছে উল্লেখ করে অ্যাঞ্জেলা মার্কেল বলেন, সেখানে ( আফগানিস্তানে) আমরা কী পেলাম, কী পেলাম না; সেটা পরে আলোচনা করা যাবে।