আঞ্চলিক দেশগুলোর সহযোগিতার মধ্যদিয়েই কেবল নিরাপত্তা প্রতিষ্ঠা সম্ভব: রুহানি

ইসলামি প্রজাতন্ত্র ইরানের প্রেসিডেন্ট ড. হাসান রুহানি বলেছেন, আঞ্চলিক দেশগুলোর মধ্যে বৃহত্তর সহযোগিতার মাধ্যমেই শুধুমাত্র নিরাপত্তা ও স্থিতিশীলতা প্রতিষ্ঠা সম্ভব।

তিনি আরো বলেছেন, “এটি নিশ্চিত যে, আঞ্চলিক সহযোগিতা বিস্তারের মধ্য দিয়ে আমরা আরো উন্নত নিরাপত্তা এবং স্থিতিশীলতা প্রতিষ্ঠা করতে পারি।”

গতকাল (বৃহস্পতিবার) রাতে কাতারের আমির শেখ তামিম বিন হামাদ আলে সানির সঙ্গে ফোনালাপে এসব কথা বলেছেন প্রেসিডেন্ট রুহানি। এ সময় তিনি পবিত্র ঈদুল আযহা উপলক্ষে কাতারের আমরিকে অভিনন্দন ও শুভেচ্ছা জানান।

আঞ্চলিক দেশগুলোর বিভিন্ন ক্ষেত্রে মার্কিন সরকার যখন হস্তক্ষেপমূলক তৎপরতা জোরদার করেছে তখন প্রেসিডেন্ট রুহানি এসব কথা বললেন।

আমেরিকা এবং তার কয়েকটি মিত্রদেশ গত দুই দশকের বেশি সময় ধরে মধ্যপ্রাচ্য অঞ্চলকে তাদের ষড়যন্ত্র বাস্তবায়নের বৃহত্তর ক্ষেত্রে বানিয়েছে এবং তেলসহ বিভিন্ন সম্পদ লুটপাট ও অস্ত্র বিক্রির বাজারে পরিণত করেছে।

ইরান এবং কাতারের মধ্যকার বর্তমান সম্পর্কের কথা উল্লেখ করে প্রেসিডেন্ট রুহানি বলেন, এ সম্পর্ক এখন একটি ইতিবাচক পর্যায়ে উপনীত হয়েছে এবং কাতারের সঙ্গে সম্পর্ক আরো উন্নত করার ক্ষেত্রে ইরানের পক্ষ থেকে কোনো সীমা-পরিসীমা নেই।

তিনি বলেন, করোনা পরিস্থিতি স্বাভাবিক হলে বাণিজ্যিক এবং অর্থনৈতিক সম্পর্ক আরো উন্নত পর্যায়ে পৌঁছাবে এবং দু’দেশের কর্মকর্তারা ব্যক্তিগতভাবে সাক্ষাৎ ও বৈঠকের ব্যবস্থা করবেন।

টেলিফোন আলাপে কাতারের আমির ইসলামি প্রজাতন্ত্র ইরানের সরকারের জন্য শুভেচ্ছা জানান এবং মুসলিম উম্মাহর কল্যাণ এবং সমৃদ্ধি কামনা করেন।

শেখ তামিম ইরানের সঙ্গে তার দেশের সম্পর্ক আরো উন্নত করার ওপর গুরুত্বারোপ করে বলেন, তেহরানের সঙ্গে সহযোগিতা ও সম্পর্ক উন্নয়নকে বিশেষ গুরুত্ব দেয় দোহা।

তিনি বলেন, চলমান করোনা পরিস্থিতি স্বাভাবিক হলে ইরান এবং কাতারের মধ্যে সর্বাত্মক সহযোগিতা আরো বাড়বে।